Trending

Wednesday, 10 April 2019

আজ প্রথম ব্ল্যাক হোল -র দর্শন পেতে পারে পৃথিবী:

আজ প্রথম ব্ল্যাক হোল  -র দর্শন পেতে পারে পৃথিবী:


অসম্ভবকে সম্ভব করার আরেক নাম হয়তো বিজ্ঞান। আর গবেষকরা সর্বদা আমাদের যা জানা  তার সীমা বৃদ্ধি করার চেষ্টা করেন এবং আমরা যা মনে করি অসম্ভব তা সম্ভব করেন। বিজ্ঞানীরা যে প্রকল্পে কাজ করেছেন তার পরিধি সেই বরফ যুগের ম্যামথ থেকে এই যুগের ক্লোন বানরের আবিষ্কারের জগ অবধি।

তবে, সে ম্যামথ ই হোক বা ক্লোন বানর ই  হোক উভয়ক্ষেত্রেই বিষয় টা ছিল পৃথিবীতে বসবাসকারী প্রাণী।এক্ষেত্রে ব্যাপার তা সম্পূর্ণ আমাদের সাধারণ দৃষ্টিভঙ্গির বাইরে। তাই এক্ষেত্রে হয়তো ব্যাপারটা আরো বেশি আকর্ষণীয় হবে কারণ, এখানে ব্যাপারটা সম্পূর্ণ আমাদের বায়ুমণ্ডলের বাইরে।

সাইন্স অ্যালার্টের প্রতিবেদন অনুযায়ী, আমরা আজ এমন একটি  জিনিসের সাক্ষী হতে চলেছি যা হয়তো ইতিহাসে আগে কখনো হয়নি আর হবে কিনা তাও কারো জানা নেই।

এটি একটি অদ্ভুত উত্তেজনাপূর্ণ ঘটনা, এমনকি যারা বিজ্ঞান বা মহাকাশ নিয়ে আগ্রহী নন তাদের জন্যও। আমরা সর্বদা শিক্ষক, গবেষক বা বিজ্ঞানীদের কৃষ্ণ বিবর (BLACK HOLE ) সম্পর্কে কথা বলতে শুনেছি, কিন্তু সেটি আসলে ও কি তা হয়তো অনেকেরই সঠিকভাবে জানা নেই বা জানা থাকলেও হয়তো ধারণা তা সম্পূর্ণ পরিষ্কার না।আর তা দেখতে কেমন সে ধারণা তো দূরেই থাকে। কিছু বিজ্ঞান বিশ্লেষিত ছবি করার হয়তো কিছুই ধারণা নেই।

যদিও এটি প্রকৃতপক্ষে অদৃশ্য তাও এর মাধ্যাকর্ষণ টানের ফলে আশেপাশে যে ধ্বংসলীলা হয় তাসাধারণ চোখে এ দেখা সম্ভব।সর্বোপরি, এর "ইভেন্ট হরাইজন" এ সম্পূর্ণ প্রভাব আমরা লক্ষ্য করতে পারি।


ইভেন্ট হরাইজন টেলিস্কোপ প্রকল্পের (EHT) সকল গবেষক ও অন্যান্য মানুষগুলিকে এই আসন্ন ইভেন্টের জন্য ধন্যবাদ জানাই। আজ যখন এই ঘটনাটি ঘটছে সর্বপ্রথম সেই ছবি দেখতে অবশ্যই নজর রাখুন EHT -র অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে

No comments:

Post a comment