Trending

Saturday, 25 May 2019

দীঘার সমুদ্রে আবার তলিয়ে গেল মদ্যপ পর্যটক



দীঘার সমুদ্রের প্রাণহানি এক পর্যটকের। পুলিশের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করেই মদ্যপ অবস্থায় উত্তাল সমুদ্রে স্নান করতে নেমে তলিয়ে যান এক পর্যটক। অল্পের জন্য প্রাণে রক্ষা পান তার শিশু কন্যা। দীঘার স্টেট জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা চলছে মৃতের মেয়ের। শুক্রবার দুপুর একটা নাগাদ ঘটনাটি ঘটেছে দীঘার এক নম্বর ঘাটে।

পুলিশ সূত্রে খবর পর্যটক এর নাম শংকর দেব। বছর 44 এর এই পর্যটক উত্তর 24 পরগনা নিউ ব্যারাকপুর এর বাসিন্দা। গুরুতর আহত বছর পাঁচেকের শিশু কন্যা অত্রিকা দেব। গত বৃহস্পতিবার নিউ ব্যারাকপুর থেকে সপরিবারে দীঘায় ঘুরতে গিয়েছিলেন। উঠেছিল নিউ দিঘার একটি হোটেলে। রোববার দুপুরে স্নানের জন্য নিউ দীঘা থেকে ওল্ড দীঘায় আসে এরা । অভিযোগ শংকর এক নম্বর গেটের কর্তব্যরত সিভিক ভলেন্টিয়ার ও নুলিয়া দের  নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করেই সমুদ্রে স্নান করতে নেমে পড়েন। মদ্যপ অবস্থা বেসামাল হয়ে উত্তর সমুদ্রে তলিয়ে যায় শংকর। বিপদ বুঝে চিৎকার শুরু করে আশেপাশের লোকেরা।তড়িঘড়ি  ঘটনাস্থলে পৌঁছায় সিভিক ভলেন্টিয়ার ও নুলিয়ারা। কোনোক্রমে সমুদ্রে নেমে  দুজনকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা দায়ের করে তদন্তে নেমেছে পুলিশ। কিন্তু একের পর এক মৃত্যু মাথানাড়া দিয়েছে নানা প্রশ্নের। অতিরিক্ত মদ্যপান নাকি উদাসীনতার জেরে প্রাণহানি হলো পর্যটকের সে কথাও ভাবাচ্ছে পুলিশকে। তার পাশাপাশি মদ্যপ অবস্থায় পর্যটককে কেন সমুদ্রের নামতে দেওয়া হলো সেটাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

No comments:

Post a comment