Trending

Thursday, 16 May 2019

পাহাড়ের জঙ্গলে চলো যাই দঙ্গলে।




জঙ্গল হলো মানুষের প্রাচীনকালের বাসস্থান ‌। যখন মানুষ প্রথম প্রথম পৃথিবীর বুকে এসেছিল তখন জঙ্গলেই ছিল তার আশ্রয় ‌। তারপর নিরাপত্তার কারণেই সে গুহাবাসী হল আর এখন তো সম্পূর্ণ নিজেদের একটা জগৎ তৈরি করে ফেলেছে। কিন্তু বাদবাকি প্রাণীরা? তারা কিন্তু এখনো জঙ্গলেই পড়ে রয়েছে। কেমন আছে সেই প্রাণীরা? চলুন দেখে আসা যাক।



কলকাতা থেকে ট্রেন ধরে নিউ জল্ পাই গুড়ি। হ্যাঁ আমরা চলেছি ডুয়ার্সে পথে। নিউ জলপাইগুড়ি স্টেশন থেকে জিপে করে সেবক রোড হয়ে চাল শা পার হয়ে লাটাগুড়ি। এখান থেকে শুরু হবে আমাদের ভ্রমণ।



1949 সালে ডুয়ার্স অভয়ারণ্যের স্বীকৃতি পায় ‌। ডুয়ার্স ভারতের বৃহত্তম এবং ঘন অরণ্য। তাই দিনে মাত্র 3 বার অত্যন্ত সুরক্ষা র সঙ্গে জঙ্গলে প্রবেশ করা যায়। সকাল সাতটা জঙ্গল সাফারিতে ভ্রমণ করা যায় 2 থেকে 3 কিলোমিটার ‌‌। কিন্তু বিকেল বেলা যদি আপনি ভ্রমণ করতে চান তাহলে চার থেকে পাঁচ কিলোমিটার অব্দি যেতে পারেন। চেকপোস্ট থেকে ক্যাম্প পারমিট নিয়ে গাইড সহযোগে বিশেষ গাড়িতে করে জঙ্গলে প্রবেশ করতে পারেন। এখানে হাতি ও বাইসন বিখ্যাত। এক শৃঙ্গী গন্ডারের কথা তো বলতেই হবে। জঙ্গলে বেশকিছু কটেজ আছে, চাইলে রাত্রি বাস করা যেতে পারে।ডুয়ার্সে যে অরণ্য গুলি আপনাকে বন্যজীবন উপভোগ করাবে সেগুলি হল গরুমারা, চাপড়ামারি, জলদাপাড়া, গজলডোবা, ঝালং ইত্যাদি।




তাহলে দেরি কিসের? ঝটপট ঝোলা বেঁধে চটপট তৈরি হয়ে পড়ুন জঙ্গল ভ্রমণের জন্য।

No comments:

Post a comment