Trending

Thursday, 23 May 2019

জনগণ আরো একবার প্রমান করলো জনতা জনার্দন



রাজ্যে শাসক দল তৃণমূল। কিন্তু এই তৃণমূলেরই এক কাউন্সিলর প্রায় কুড়ি দিন পর পুলিশি প্রহরায় বাড়ি ফিরতে পারলেন। তৃণমূল কাউন্সিলর শশাঙ্ক শেখর মন্ডল শিল্প শহর দুর্গাপুরের 39 নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর। বাড়ি আশিষ নগর এলাকায়। দীর্ঘ কুড়ি দিন বাদে রবিবার দিন তিনি পুলিশের সহযোগিতায় নিজের বাড়িতে প্রবেশ করলেন ।কিন্তু কি এমন ঘটেছিল যার কারণে তাকে বাড়ি তথা গ্রামছাড়া হতে হলো?

গত 29 শে এপ্রিল বর্ধমান দুর্গাপুর অঞ্চলে ভোট হয়। শশাঙ্ক শেখর বাবুর বিরুদ্ধে অভিযোগ ছিল নির্বাচনের সময় তিনি অধিকাংশ গ্রামবাসী কি ভোট দিতে বাধা দেন এবং ভোটে মেরুকরণের চেষ্টা করেন ।এমনকি 1লা মে সিপিএমের ভোট কর্মী বিবেকানন্দ মল্লিকের বাড়িতে শশাঙ্ক শেখর মন্ডল এবং তার অনুগামীরা গিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর চালায় বলে অভিযোগ ‌। বিবেকানন্দ মল্লিকের ভাই এবং তার স্ত্রীকে পার্টি অফিসে ডেকে এনে মারধর করা হয় বলেও গ্রামবাসীরা জানিয়েছে। এই ঘটনার পরই ক্ষোভে ফেটে পড়ে গোটা গ্রাম। গ্রামবাসীদের থেকে জানা যায় শশাঙ্ক শেখর মন্ডল এবং তার অনুগামীরা দীর্ঘদিন ধরেই গ্রামবাসীদের উপর অনেক অত্যাচার চালাচ্ছে ‌। তাই এই ঘটনার পর তাদের ধৈর্য্যের বাঁধ ভেঙে যায় এবং তারা শশাঙ্ক শেখর মন্ডল এর বাড়ি এবং পার্টি অফিসে চড়াও হয়। শশাঙ্ক শেখর মন্ডল তার দাদা শিবু মন্ডল এবং তাদের অনুগামীদের ব্যাপক মারধর করে বলে জানা যায়। উত্তেজিত জনতা বাড়ি এবং দলীয় কার্যালয়ে ব্যাপক ভাঙচুর চালায়। তাই প্রাণ বাঁচাতেই শশাঙ্ক শেখর মন্ডল পরিবারসহ গ্রাম ছাড়া হন। অবশেষে কুড়ি দিন বাদে প্রশাসনের সহায়তায় তিনি বাড়ি ফিরতে সক্ষম হয়েছে ন।

No comments:

Post a comment