Trending

Friday, 28 June 2019

ভুটানে প্রবল বর্ষণ



বিশুদ্ধ অক্সিজেনের ভাণ্ডার বলেই পরিচিত ভুটান। আর এবছর বর্ষা মরশুমের প্রথম থেকেই জলে ভিজে যাচ্ছে ভুটানের বিস্তীর্ণ এলাকা। তবে সেই বৃষ্টিও ক্রমে ভয়ঙ্কর আকার নিতে শুরু করল । প্রাকৃতিক বিপর্যয়ের কবলে পড়ছে ছােট্ট দেশটি।ভূটান পাহাড়ে অতি বৃষ্টির ফলে বেড়ে চলেছে তাের্সা নদীর জলস্তর। পশ্চিমবঙ্গ সীমান্ত লাগােয়া ফুন্টশােলিং শহরের সঙ্গে রাজধানী থিম্পুর সড়ক যােগাযােগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গিয়েছে ।

ভুটানে অতি বৃষ্টির কারণে সংলগ্ন উত্তর বঙ্গের জলপাইগুড়ি , আলিপুরদুয়ারেরও প্রবল বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে। বৃষ্টির কারণে প্রবল গরম থেকে মুক্তি মিলেছে স্থানীয় বাসিন্দাদের । ফুন্টশােলিং থেকে পারাে অথবা থিম্পু পর্যন্ত যাওয়ার রাজপথে বিভিন্ন স্থানে নেমেছে ধস ।বড় বড় পাথর পড়ে থাকায় গাড়ি চলাচল ব্যাহত হয়েছে । সেই সঙ্গে বৃষ্টির তােড়ে ব্যাহত জনজীবন ।উত্তর ও পূর্ব ভুটানের বেশিরভাগ এলাকাতেই প্রবল বৃষ্টির জেরে বহু গ্রাম বিচ্ছিন্ন। দুর্যোগ মাথা নিয়েই কোনরকমে কেউ কেউ বাইরে বেরিয়ে আসতে পারছেন । আবার অনেকে গৃহবন্দি হয়ে রয়েছে।

পরিস্থিতি কয়েকটি স্থানে আরও ভয়ঙ্কর।পাহাড়ী নদীতে নেমেছে হড়পা বান।ভুটানি সংবাদ মাধ্যমের সূত্রে খবর , গেদু , গােমদার , রিচাংলু এলাকায় হড়পা বানের ছবি ভয়াবহ ।অন্যদিকে ধস নেমে বিচ্ছিন্ন দেশের অপর দুই প্রধান জনপদ জেলেফু ও সারপাং ।এর জেরে খাদ্য সংকট তৈরি হতে পারে বলেও আশঙ্কা। আবহাওয়া দফতারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে আগামী কয়েকদিনে পরিস্থিতি আরও কঠিন হবে ।কারণ ভুটানের উচ্চ পার্বত্য এলাকায় প্রবল বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা থাকছে ।সেই জল নিচের দিকে নেমে আসার সময় বন্যা পরিস্থিতি তৈরি হবে।প্রধানমন্ত্রী ড .লােটে শােরিংয়ের নির্দেশে কিছু এলাকায় ত্রাণ পাঠানাের কাজও শুরু হবে। 

No comments:

Post a comment