Trending

Wednesday, 3 July 2019

"দাদা , একটু জল পাই কোথায় বলতে পারেন ! "



ছোটবেলায় বইয়ের পাতায় চোখে পড়ত একটি বিখ্যাত কথা - ' জলই জীবন '। সম্প্রতি সারা ভারতজুড়ে সৃষ্টি হওয়া জল সংকট সেই দুটি শব্দবন্ধের কথাই মনে করিয়ে দিচ্ছে । দেশের প্রতিটি প্রান্তে সৃষ্টি হয়েছে জল নিয়ে চরম হাহাকার । নদী, খাল - বিল প্রভৃতি জলাধারের জলস্তর ক্রমহ্রাসমান । মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু,কর্ণাটকের পাশাপাশি এই রাজ্যেও পানীয় জলের অভাব সাধারণ মানুষকে অস্থির ও কোণঠাসা  করে তুলেছে । এই সংকট ঘিরে উঠে আসছে নানা ভয়ানক পরিসংখ্যান । ২০৩০ সালের মধ্যে দেশের অধিকাংশ মানুষের কাছে খাওয়ার জলটুকু থাকবে না - এমনই অনুমান বিশেষজ্ঞ মহলের । 

পশ্চিমবঙ্গের বাঁকুড়া, আসানসোল,পুরুলিয়া জলকষ্টে ভুগছে । মহানগরীর নামও সেই তালিকাভুক্ত হতে বেশি দেরি নেই ! মুখ্যমন্ত্রী এ বিষয়ে বিধানসভায় কথা তুলেছেন । কৃষিপ্রধান এ দেশে জলকষ্টই মানুষকে সবথেকে বেশি পীড়া দেয় । পরিবেশবিদদের মতে পরিবেশ দূষণ , অভাবনীয় জনসংখ্যা বৃদ্ধি ও জলের অপচয়ই বর্তমান পরিস্থিতির জন্য  দায়ী । 

পদ্মা-জলঙ্গির জলের মাত্রাও ক্রমশ নিম্নমুখী । বর্ষার আগমনে উৎশৃঙ্খল হয়ে ওঠা নদীগুলির অবস্থা একেবারেই আলাদা ! যার কারণে পাট চাষীদের ভুগতে হচ্ছে বিস্তর । জলকষ্টের রূপ দেখে আমাদেরই সচেতনতা অবলম্বন করা উচিত বলে মনে হয় । অযথা জল অপচয় বন্ধ করে , বৃষ্টির জলকে উন্নত প্রযুক্তির মাধ্যমে পরিশুদ্ধ করে ব্যবহারযোগ্য করে তোলার কথা ভাবা হয়েছে সরকারি মহলে । বাঁকুড়ায় গড়ে তোলা হয়েছে একটি বৃহৎ জলাধারও । এতকিছু পরিকল্পনা গ্রহণের পরও এই পরিস্থিতিকে কতদূর দমিয়ে রাখা যাবে - তার দিকেই তাকিয়ে সমগ্র দেশবাসী । 

No comments:

Post a comment