Trending

Friday, 20 September 2019

আবারো নোংরা রাজনীতির শিকার হল বাংলা ছবি





বাংলা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি কে ঘিরে যে রাজনীতির আবহ তৈরি হয়েছে তাতে শিল্পের ক্ষতি তো হচ্ছেই,  তার সঙ্গে বাংলা ছবির দর্শক অনেক ভালো বাংলা ছবি দেখা থেকে বঞ্চিত থাকছে।এই ঘটনা আরো একবার প্রমাণিত হলো প্রদীপ্ত ভট্টাচার্যের নতুন ছবির "রাজলক্ষ্মী ও শ্রীকান্ত" কলকাতায় কোন হল না পাওয়ায়।

 রাজলক্ষ্মী ও শ্রীকান্ত মুক্তি পাচ্ছে আগামী 20 শে সেপ্টেম্বর   ল শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়ের কাহিনী অবলম্বনে তৈরি  এই সিনেমার গানগুলি ইতিমধ্যেই মানুষের মনে দাগ কেটেছে,  গানগুলি আসার সঙ্গে সঙ্গে কলকাতা সহ মফস্বলে তুমুল জনপ্রিয়তা পায়।এমনকি এই ছবির ট্রেইলার ও মানুষের মনে দাগ কেটে যায়।সবাই অপেক্ষা করছিল ছবিটি হলে আসবার,  কিন্তু তাদের সেই আশা আর পূরণ হলো না। 

 গতকাল সন্ধ্যায় পরিচালক প্রদীপ ভট্টাচার্য ফেসবুকে একটি পোস্ট করে জানান,  রাজলক্ষ্মী ও শ্রীকান্ত পশ্চিমবঙ্গে মাত্র পাঁচটি হল পেয়েছে তাও আবার শিলিগুড়ি কোচবিহার উদয়নারায়নপুর, বারুইপুর এবং সোদপুরে। ত্রিপুরায় একটিমাত্র হল পেয়েছে এই সিনেমা,  অর্থাৎ সবমিলিয়ে মাত্র ছটি হল  পেয়েছে রাজলক্ষ্মী শ্রীকান্ত।

 পরিচালক জানিয়েছেন কলকাতায় এই ছবি একটি ও  হল পায়নি, কেন পায়নি তা জানিনা।তিনি দর্শকে  অনুরোধ করেছেন যারা বুক মাই শো তে টিকিট কেটে সিনেমা দেখবেন ভেবেছিলেন তারা যেন মেক মাই ট্রিপ এ টিকিট কেটে ত্রিপুরা অথবা কোচবিহারে গিয়ে ছবিটি দেখেন।তার অভিব্যক্তি তেই  বোঝা যাচ্ছে তার অন্তরের ক্ষোভ  এবং হতাশা। 

 ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসার পর ছবির কলাকুশলীদের সহ বাংলা সিনেমার  দর্শক মহল অসন্তোষে ফেটে পড়েছে।পরিচালক প্রদীপ্ত ভট্টাচার্য জানিয়েছেন এই ছবির উপস্থাপনা এবং নির্মাণ পদ্ধতি যথেষ্ট নাগরিক এবং কিভাবে শ্রীকান্তকে  লার্জ  স্কেলে  দেখানো হয়েছে তাতে হলে গিয়ে না দেখলে বোঝা যাবে না। আমরা কলকাতাকে বাণিজ্যিক এবং সংস্কৃতির রাজধানী বলে জানি,  কিন্তু সেই কলকাতাতেই কিছু সস্তা মসলাদার ছবি রমরমিয়ে চলছে, অথচ যারা সত্যি সত্যি বাংলা সিনেমা কে কেন্দ্র করে যথার্থরূপে শিল্পকে প্রকাশ ঘটাতে চাইছেন তাদের তৈরি করা ছবি হল পাচ্ছে না।পরিচালক জানিয়েছেন বাংলা সিনেমার অবস্থা খুবই করুন কিন্তু হাল ছাড়া যাবে না আমরা ছবিটা দেখবোই। 

 সংগীতশিল্পী তিমির বিশ্বাসের অভিব্যক্তি তিনি হতবাক।ছবির প্রধান চরিত্রে অভিনয় করা ঋত্বিক চক্রবর্তী জানান আপাতত আমাদের সিনেমাটি পশ্চিমবঙ্গের পাঁচটি হল ছাড়া অন্য কোথাও মুক্তি পাবার খবর নেই।আমি যাদেরকে চারদিনের মধ্যে সিনেমা টা  দেখতে বলেছিলাম জানি না তারা কোথায় কিভাবে দেখবে?  এমনকি আমি কোথায় দেখব সেটাও বুঝতে পারছি না।তবে যেভাবেই হোক ছবিটি দেখব।এই ছবিতে অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করেছেন জ্যোতিকা জ্যোতি,  অপরাজিতা ঘোষ দাস, রাহুল বন্দ্যোপাধ্যায় সায়ন ইত্যাদি।

 প্রসঙ্গত উল্লেখ্য 2012 সালে প্রদীপ্ত ভট্টাচার্যের প্রথম ছবি বাকিটা ব্যক্তিগত জাতীয় পুরস্কার পায় সেরা বাংলা চলচ্চিত্র হিসেবে। 

No comments:

Post a comment